BetAsia 365 রিভিউ

বেট এশিয়ার প্রায় শুরু থেকেই আমি এই অনলাইন ক্যাসিনোতে যোগ দিয়েছি। বিশ্বের অনেক বড় বড় অনলাইন ক্যাসিনোতে খেলার অভিজ্ঞতা আমার আছে। তবে এশিয়ার অনলাইন ক্যাসিনোগুলোর মধ্যে আমার মনে কিছুটা ভিন্ন জায়গা করে নিয়েছে এই বেটএশিয়া।

এশিয়ার মধ্যে এমন একটা অনলাইন ক্যাসিনো থাকা, গ্যাম্বলিং ভালোবাসা মানুষগুলোর জন্য একটু অন্যরকম বিষয়। এ যেন ঘর থেকে হাত বাড়িয়ে ধানের শীষে হাত বোলানোর মতো। বাংলাদেশ থেকে খেলার জন্য একটা বেশ ভালো সাইট বেটএশিয়া।

বেটিং জগতে অনেক বছর পার করার পর, আমি এটা জানি বেটএশিয়ার এখনো উন্নতি করার অনেক জায়গা আছে। তবে, এতো কম অর্থে ভালো মানের প্রিমিয়াম ক্যাসিনো গেমিং কন্টেন্ট খুঁজে পাওয়া কষ্টকর। এখানে আন্তর্জাতিক মানের প্রায় সব ক্যাসিনো প্রোডাক্ট আছে।

বেটএশিয়াতে খেলতে গিয়ে আমার মনে হয়েছে, আমি একটা মিশনে আছি। প্রতিটা খেলায় টান টান উত্তেজনা। এখানে খেলতে এলে দেখবেন, গেমের কোয়ালিটি আপনার মাথাকে আউলাঝাউলা করে দেবে।

বেটএশিয়া মালয়েশিয়া এবং এশিয়ার সেরা অনলাইন ক্যাসিনো

অনেকেই বলেন এশিয়ার সেরা অনলাইন ক্যাসিনো বেটএশিয়া। মালয়েশিয়ার এই অনলাইন ক্যাসিনো, এশিয়ার ক্যাসিনো ব্যবসাকে ভিন্ন মাত্রা দিয়েছে। এখানে আপনার জন্য আছে সর্বাধিক জনপ্রিয় সব ক্যাসিনো গেম। একবার খেললে ভালো লেগে যাবে আপনারও। অনলাইন ক্যাসিনোতে যারা নতুন, তাদের জন্য অসাধারণ একটা সাইট বেটএশিয়া। আমার ব্যক্তিগত মত হল, ক্যাসিনোতে নতুন হলে আপনার জন্য সাইটটি হতে পারে প্রথম পছন্দ। একঘেয়েমি জীবনে দেবে নতুন এডভেঞ্চারের অভিজ্ঞতা।

বেট এশিয়া পরিচিতি

বেট এশিয়া অনলাইন গ্যাম্বলিং সাইট। ই-স্পোর্টস বেটিংয়ের জন্য বেশি পরিচিত। এখানে সবচেয়ে বেশি বেটিং হয় ফুটবল খেলার ওপর। যদি আপনি ফুটবল খেলার ভক্ত হন, ঘরে বসেই খেলার ভবিষ্যৎ বলে দিতে পারেন, তবে বেটএশিয়া আপনার জন্য একটা ভালো সাইট হতে পারে। এখানে বেটিং করে আপনার লাভবান হওয়ার সম্ভাবনা প্রচুর। বাংলাদেশের যারা বেটিং পছন্দ করেন তাদের কাছেও পছন্দের শীর্ষে রয়েছে সাইটটি। আর যদি স্পোর্টস বেটিংয়ের বাইরেও ক্যাসিনোতে আপনার বিশেষ দুর্বলতা থাকে, সেই চাহিদাও মেটাবে বেটএশিয়া।

বেটএশিয়ার সুবিধা

  • সাইটটি খুব যে পরিচিত তা নয়। একারণে এখানে নিজের অবস্থান তৈরি করা সহজ।
  • যে কোন তথ্য সহজে পেয়ে যাবেন। ব্যানার অ্যাডের ঝামেলা নেই। অতিরিক্ত তথ্য দিয়ে তারা আপনাকে বিভ্রান্ত করবে না। যতোটুকু তথ্য দরকার তাই তারা আপনাকে দেবে।
  • ধরুন আপনি রেজিস্টারের পর অডে বাজি ধরে জিতলেন। এরপর সাইটটি আপনাকে পরবর্তীতে সফল হওয়ার জন্য পরামর্শ দেবে। অন্য কোন গেমে বাজি ধরবেন তাও সাজেস্ট করবে।
  • গেম খেলার সময় কোন সমস্যায় পড়লে, সরাসরি কাস্টমার কেয়ারে যোগাযোগ করা যায়। কাস্টমার কেয়ারের সেবার মান তুলনামূলকভাবে ভালো।
  • সাইটি ব্যবহার করা খুবই সহজ। ইউজার এক্সপেরিয়েন্স ভালো হবে বলেই আমার বিশ্বাস।
  • অসংখ্য খেলার মাঝে আপনার পছন্দের খেলা বেছে নেয়ার সুযোগ পাবেন। যেটা ভালো লাগবে না, এড়িয়ে যেতে পারবেন।

বেটএশিয়ার অসুবিধা:

  • বাংলাদেশে যেহেতু অনলাইন ক্যাসিনো সাইট নিষিদ্ধ, তাই প্রক্সি ছাড়া ঢুকতে সমস্যা হতে পারে।
  • বেট৩৬৫ বা ওই ধরণের সাইটগুলোর মতো খুব বেশি গেমস এখানে নেই।

বেটএশিয়াতে যেসব খেলা আছে:

ফুটবল বেটিংয়ের জন্য বেটএশিয়া পরিচিত হলেও, এখানে রয়েছে বিভিন্ন রকমের জনপ্রিয় সব খেলা। এদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি হল-

  • পোকার
  • বাকারাত
  • রওলেট এবং
  • বিখ্যাত সব প্রতিষ্ঠানের স্লট গেমস।

কিভাবে একাউন্ট খুলবেন?

সাইটটি শুরুর দিকেই আমি একাউন্ট করেছি। এখন সাইটে অনেক পরিবর্তন এসেছে। তবে সহজেই এখানে একাউন্ট খোলা যাবে। প্রথমে বেটএশিয়ার হোমপেজে গিয়ে ‘জয়েন নাও’ বাটনে ক্লিক করতে হবে। যে যে তথ্য চায় পূরণ করুন। রেজিস্ট্রেশন ধাপ শেষ হলে, ভালো করে দেখে নিয়ে সাবমিট বাটনে ক্লিক করুন। একাউন্ট খোলা হয়ে গেল। ইমেইল ভ্যারিফিকেশন চাইলে, যে ইমেইল একাউন্ট দিয়েছেন সেখানে গিয়ে তাদের পাঠানো লিংকে ক্লিক করুন। ব্যাস! একাউন্ট ভ্যারিফাই হয়ে যাবে।

টাকা ডিপোজিট ও উত্তোলন

পরিচিত ও বিখ্যাত প্রায় সব পেমেন্ট গেটওয়ের মাধ্যমেই আপনি টাকা ডিপোজিট করতে পারবেন। যেকোনো সময় টাকা একাউন্টে ডিপোজিট করার পরেই, কয়েক মিনিটের মধ্যেই একাউন্ট চালু হয়ে যাবে।

টাকা ডিপোজিটের পর তাদের কাস্টমার সার্ভিসের সাথে যোগাযোগ করা ভালো। এতে করে আপনি প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই খেলা শুরু করতে পারবেন।

বাংলাদেশ থেকে বেটএশিয়াতে খেলে টাকা জিতলে, তা তুলতেও খুব একটা বেগ পেতে হবে না। যে কোন সময় আপনি উইথড্রো রিকোয়েস্ট করতে পারবেন। টাকা ছেড়ে দেয়ার প্রক্রিয়া হবে সকাল ১১ টা থেকে রাত ১১ টার মধ্যে। এখান থেকে টাকা উঠাতে খুব বেশি সময় লাগবে না। সাধারণত একদিনের মধ্যেই টাকা একাউন্টে চলে আসে।

ব্যাংকিং

এখানে সব গেমের জন্যই আপনাকে সর্বনিম্ন ১০ মালয়েশিয়ান রিঙ্গিত ডিপোজিট করতে হবে। অনলাইন ব্যাংকিং, এটিএম ট্রান্সফার ও ক্যাশ ডিপোজিট মেশিনের জন্য সর্বনিম্ন ডিপোজিট ৩০ মালয়েশিয়ান রিঙ্গিত। ১০ থেকে ২৯ মালয়েশিয়ান রিঙ্গিত পর্যন্ত ডিপোজিট ট্রানজেকশনের জন্য আপনাকে আইব্যাংক ব্যবহার করতে হবে।

আপনার একাউন্টে সর্বনিম্ন ৩০ মালয়েশিয়ান রিঙ্গিত থাকলে তা উত্তোলন করতে পারবেন। প্রতিদিন একবারের বেশি টাকা উত্তোলন করা যায় না। একবারে সর্বোচ্চ ৩০ হাজার মালয়েশিয়ান রিঙ্গিত পর্যন্ত উত্তোলন করতে পারবেন। এর চেয়ে বেশি অর্থ থাকলে, পরের দিন দ্বিতীয় কিস্তিতে বাকি টাকা ওঠানো যাবে।

খেলা শুরু করার জন্য টাকা ডিপোজিটের পর পাঁচ মিনিটের মতো অপেক্ষা করা লাগতে পারে। এটা কি বেশি সময়? নিজেকে খেলার জগতে ভাসিয়ে দিতে, এটুকো সময় তো প্রস্তুতিতেই লেগে যায়।

টাকা উত্তোলন পদ্ধতি:

আপনার ড্যাশবোর্ড থেকে কয়েকটি সহজ ধাপ অতিক্রম করে টাকা তুলতে পারবেন। ধাপগুলো হল-

১। ড্যাশবোর্ডে গিয়ে ট্রান্সফার অপশনে ক্লিক করুন।

২। কোন গেইম থেকে পাওয়া টাকা তুলতে চান তা সিলেক্ট করুন। এরপর নিজের মেইন ওয়ালেটে টাকা ট্রান্সফার করুন।

৩। ট্রান্সফার পেইজ থেকে বের হয়ে আসুন। এবার উইথড্রো অপশনের ওপর ক্লিক করুন।

৪। উইথড্রোল টিকিট ফর্ম পূরণ করে সাবমিট করুন। এপ্রুভালের জন্য কিছুক্ষণ অপেক্ষা করতে হবে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ৫ থেকে ১৫ মিনিটের মধ্যে টাকা আপনার ব্যাংক একাউন্টে চলে যায়। তবে ছুটির দিন বা অন্য কোন সমস্যার জন্য কিছুটা দেরি হতে পারে। এসব ক্ষেত্রে কাস্টমার কেয়ারের সাথে যোগাযোগ করে সহজেই সমাধান পাওয়া যায়।

বেটএশিয়াতে কেন খেলবেন?

এখন আপনার মনে প্রশ্ন আসতে পারে, বিশ্বের এতো সেরা সেরা সাইট থাকতে আপনি বেটএশিয়ায় কেন খেলবেন? উত্তর সহজ। ইউরোপ আমেরিকার সাইটগুলোতে যখন আপনি ক্যাসিনো বা বাজি ধরবেন, তখন আপনার প্রতিযোগিতা করতে হবে বাঘা বাঘা সব মানুষদের সাথে। তুলনামূলক নতুন হওয়ায় বেটএশিয়াতে আপনাকে কম প্রতিদ্বন্দ্বিতার মধ্যে পড়তে হবে। পাশাপাশি বেটএশিয়া তাদের পার্টনার প্রতিষ্ঠানগুলোর সাথে চুক্তির মাধ্যমে সেরা অফার দেয়। এতে করে খেলায় যেমন মজা আসে, তেমনি আয়ও নেহায়েত কম হয় না। সপ্তাহের সাতদিন খোলা থাকা কাস্টমার কেয়ারের মাধ্যমে সহজেই সেবা নিতে পারবেন। সমস্যার সমাধানও পাবেন অনেক সহজে।

শেষ কথা

এসবের বাইরেও যদি আপনি আপনার মোটর স্কিল পরীক্ষা করতে চান? কিংবা মোবাইলে খেলতে চান খেলা? তবে আপনার জন্য নাগা ফিস। বেট এশিয়ার মোবাইল ক্যাসিনোর জন্য অন্যতম সেরা গেম। এখানে নিজের পারদর্শিতা দেখিয়ে উঠে যেতে পারেন লিডারবোর্ডে। সেখানে পেয়ে যাবেন আমাকেও! যদি আপনি একটু ক্লাসি হয়ে থাকেন, ক্লাসিক ক্যাসিনো আপনার পছন্দ হয়, তবে আমি বলবো পোকার বা টেক্সাস হোল্ড’এম গেমগুলো খেলে দেখুন। আর্কেড গেম বা ভিডিও আর্কেড এমনকি ভিডিও পোকারও হতে পারে আপনার পছন্দের অন্যতম জায়গা।

যারা বিশ্বাসযোগ্য ক্যাসিনো গেমিংয়ের অভিজ্ঞতা চান, আমার পরামর্শ তারা সাইটিতে খেলে দেখতে পারেন। আমার অভিজ্ঞতা থেকে বলতে পারি, ভালো ফিডব্যাক পাবেন। তবে যেকোনো বাজি ধরার আগে অবশ্যই বিধিনিষেধ ও নিয়মাবলীগুলো ভালোভাবে পড়ে নেবেন। এতে আপনার জন্য যেমন খেলার নিয়মগুলো বোঝা সহজ হবে, তেমনি শর্ত প্রযোজ্য টাইপের অফারগুলোতে আপনার হাবুডুবু খেতে হবে না।